Header ad

মোদীর স্ত্রী বরখাবিস্ত সেনগুপ্ত!

বছরটাই শুরু হয়েছে বায়োপিক দিয়ে। জানুয়ারি মাসে মুক্তি পেয়েছে ‘দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’, ‘ঠাকরে’ ও ‘মনিকর্নিকা’। প্রথমটি মনমোহন সিংয়ের রাজনৈতিক জীবন সম্পর্কে। দ্বিতীয়টি বাল ঠাকরের বায়োপিক আর তৃতীয়টি রানি লক্ষ্ণীবাঈয়ের কাহিনি। তালিকায় রয়েছে ‘স্পেশাল ৩০’-র মতো ছবি। এরপর আসছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিকও। ছবিতে থাকবে তার স্ত্রীয়ের কথাও। আর এই ভূমিকায় অভিনয় করবেন এক বাঙালি অভিনেতার স্ত্রী।

সংবাদ প্রতিদিন পত্রিকার খবরে বলা হয়, ভারতের প্রধানমন্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করবেন বিবেক ওবেরয়। যার লুক ইতিমধ্যেই প্রকাশ্যে এসেছে। এবার জানা গেল মোদীর স্ত্রী যশোদাবেনের ভূমিকায় কাকে দেখা যাবে। সেই চরিত্রে অভিনয় করবেন অভিনেতা ইন্দ্রনীল সেনগুপ্তের স্ত্রী বরখা বিস্ত সেনগুপ্ত।

অভিনেত্রী জানিয়েছেন, ছবির শুটিং হবে আমেদাবাদে। চরিত্রের জন্য তিনি ইতিমধ্যেই হোমওয়ার্ক করতে শুরু করে দিয়েছেন। এখন তিনি এ নিয়ে পড়াশোনা করছেন। যশোদাবেন সম্পর্কে যত বেশি জানতে পারবেন, তার চরিত্র ফুটিয়ে তুলতে ততটাই সুবিধা হবে। তাই এখন থেকেই কাজকর্ম শুরু করে দিয়েছেন তিনি। ছবির জন্য গুজরাটি ভাষাও শিখতে হতে পারে বলে জানিয়েছেন বরখা। তবে আমেদাবাদে শুটিং করতে তার খুব একটা অসুবিধা হবে না। স্বামী ইন্দ্রনীল সেনগুপ্তের সূত্রে এই শহরে একাধিকবার এসেছেন তিনি।

লুকের ব্যাপারে এখনও কিছু জানাননি বরখা। তবে মোদীর লুক আনতে একটানা সাত ঘণ্টা ধরে মেকআপ করেছিলেন বিবেক। প্রযোজক সন্দীপ সিং বলেন, ‘মোদীর চরিত্রে কাকে বেছে নেওয়া হবে, সেই নিয়ে অনেক ভাবনাচিন্তা করা হয়। এরপরই আমরা সিদ্ধান্ত নিই বিবেককেই এই চরিত্রে অভিনয়ের জন্য অনুরোধ করা হবে।’

প্রযোজক আরও জানান, বিবেকের অভিনয় দক্ষতা তাকে মুগ্ধ করেছে। তাই বিবেককে বেছে নেওয়া হয়। কারও বায়োপিক বানানো খুবই শক্ত বলেও জানান প্রযোজক। তাই তার দাবি, বিবেক একমাত্র অভিনেতা যে এই সিনেমা তৈরির জন্য প্রয়োজনীয় সময় দিতে পারবেন পরিচালক-প্রযোজককে। তাই বিবেককেই মোদী হিসাবে ভেবেছিলেন সন্দীপ।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *