Header ad

কিডনির অকেজো হবার যত লক্ষণ

দেহের সব ধরণের বর্জ্য পদার্থ নির্গমনের কাজ করে কিডনি। কাজেই দেহের জন্য কিডনির গুরুত্ব অপরিসীম। তবে যেকোনো সময় যেকোনো কারণে কিডনি দুর্বল হয়ে পড়তে পারে। তাই কিডনি বিষয়ে থাকতে হবে সতর্ক। এছাড়াও কিডনি বিষয়ক সমস্যা সম্পর্কে রাখতে হবে পর্যাপ্ত জ্ঞান।

কিডনি সমস্যার অন্যতম প্রধান লক্ষণ হচ্ছে দুর্বলতা। আর এই দুর্বলতা আসে রক্তশূন্যতা থেকে। কিডনি যদি ঠিকমত কাজ না করতে পারে তাহলে রক্ত ক্রমাগত দূষিত হতে থাকে। যার কারণে রক্তে নতুন করে ব্লাড সেল উৎপন্ন হয় না।

কিডনির অক্ষমতায় শরীরে চুলকানির সমস্যা দেখা দেয়।

কিডনির অক্ষমতায় শরীর বর্জ্য হিসেবে অ্যামোনিয়া ফিল্টার করতে পারে না। রক্তে অত্যধিক পরিমাণের অ্যামোনিয়া মুখে অরুচি, ওজন হারানোর মত সমস্যার সৃষ্টি করে।

কিডনি কাজ করা বন্ধ করতে শুরু করলে শরীরের বর্জ্য পদার্থ রক্তে মিশতে শুরু করে। এই বর্জ্য যখন রক্তের সাথে ফুসফুসে পৌঁছায় তখন ফুসফুস সেই বর্জ্য বের করার জন্য কার্বন ডাই অক্সাইড ব্যবহার করা শুরু করে। যার কারণে পর্যাপ্ত অক্সিজেন ফুসফুসে ঢুকতে পারে না। এতে আপনার শ্বাসকষ্টের সমস্যা হতে পারে।

তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে কিডনিতে সমস্যা হলে কোন ধরনের লক্ষণ দেখা যায় না। তাই কিডনির নিয়মিত চেক আপ উচিত।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *