Header ad

সুস্থ থাকতে নিয়মিত যেসব খাবেন

বর্তমানে মানুষ অনেক বেশি রোগাক্রান্ত হন। আশেপাশে সবকিছু ভেজালে ভরে যাওয়ায় এগুলোর বিরূপ প্রভাব পড়ছে স্বাস্থ্যের ওপর। এজন্য নিজে সতর্ক থাকতে হবে। পাশাপাশি নিচের উল্লেখিত খাবারগুলো নিয়মিত খান। তাহলে সুস্থ থাকতে পারবেন।

হলুদ

হলুদের গুণাগুণ নিয়ে নতুন করে বলার কিছু নেই। সকালে উঠে এক টুকরো কাঁচা হলুদ যেমন পেট ভালো রাখে তেমনই রোগ-জীবাণু-ইনফেকশন থেকেও দূরে রাখে। তাইতো বসন্তে বলা হয় হলুদ তেল মাখতে। এছাড়াও হলুদ চা খেতে বলা হয়। কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণ থেকে হজম শক্তি বাড়ানো সবই হলুদের পক্ষে সম্ভব।

তুলসী

ঠাণ্ডার বড় ওষুধ তুলসিপাতা এটা কারও অজানা নয়। এছাড়া গ্যাস-বদহজমে খুব ভালো কাজ করে তুলসি পাতা। এখন বলা হয়, দিনের প্রথম চায়ে, কয়েকটি তুলসি পাতা দিয়ে দিন। সারাদিনের ক্লান্তি থেকে দূরে থাকবেন।

আমলকি

আমলকির মধ্যে ভিটামিন-সি থাকায় তা চুল এবং ত্বকের জন্য খুবই ভালো। এছাড়া আমলকির জুস বা আমলকি চূর্ণ যে কোনও উপায়েই খাওয়া যেতে পারে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তুলতে এটা খুবই কার্যকরী।

আদা

ব্যথা এবং সর্দি কাশি থেকে দূরে থাকতে আদার জুড়ি মেলা ভার। এজন্য সকালে উঠে একটু আদা কামড়ে খান বা আদা দেয়া চা খান। এতে ওজন কমবে। সেইসঙ্গে হাঁটুর ব্যথা থেকেও মুক্তি পাবেন। পরীক্ষামূলক ভাবে ১৫ দিন চিনি ছাড়া আদা চা দিনে ৫ বার খান। ওজন কমবেই।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *